অক্টোবর ২২, ২০১৯ ২:০০ পূর্বাহ্ণ
সর্বশেষ
ক্রিকেটার হতে চাননি সাকিব!

ক্রিকেটার হতে চাননি সাকিব!

বাংলাদেশের ক্রিকেট ইতিহাসের সেরা খেলোয়াড় সাকিব আল হাসান। বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের আজ যে অগ্রযাত্রা তাতে সাকিব আল হাসানের অবদান বলে শেষ করা যাবে না। কিন্তু মজার ব্যাপার হলো, কখনোই ক্রিকেটার হতে চাননি বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডার! এমনকি খেলোয়াড়ও হতে চাননি তিনি। দেশের একটি ইংরেজি দৈনিককে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এমনটাই জানিয়েছেন সাকিব।

জাতীয় দলে খেলছেন সেই ২০০৬ সাল থেকে। এতোদিন পর এসে নিজের পারফরম্যান্স নিয়ে গর্ব করতেই পারেন তিনি। কিন্তু কোন ব্যাপারগুলো আসলে তাকে এতদূর নিয়ে আসার ব্যাপারে সাহায্য করেছে?

উত্তরে সাকিব বলেছেন, ‘একটা ব্যাপার খুবই গুরুত্বপূর্ণ, আমি আসলে কখনই ক্রিকেটার কিংবা খেলোয়াড় হতে চাইনি। আমি এটা পেশা হিসেবে নেওয়ার কথা কখনও ভাবিনি। আমি শুধু খেলতে পছন্দ করতাম। আমার পরিবার আমাকে বিকেএসপিতে খেলোয়াড় হতে পাঠায়নি। তারা জানতেন আমি খেলতে ভালোবাসি। ভাবনাটা এমন ছিলো, বিকেএসপিতে গেলে অন্তত আমার পড়াশোনাটা হবে। সঙ্গে খেলাও। আমি স্বপ্নেও ভাবিনি আমি জাতীয় দলের হয়ে খেলবো।’

কিন্তু বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে (বিকেএসপি) গিয়েও নিজের সেরাটা দিয়েছেন সাকিব। সবসময়েই দলে জায়গা করে নিয়েছেন। পারফরম্যান্স দিয়ে নিজেকে প্রমাণ করেছেন সেই অনূর্ধ্ব-১৩ দলের হয়ে খেলার সময় থেকে। কিন্তু, এগুলোর কোনটাই নাকি ‘খেলার জন্য’ ছিলো না! ছেলেরা, দেশের বাইরে খেলতে যেতো। ভালো খেললে তাদের সঙ্গে যাওয়া যাবে। আর সাকিব সুন্দর জায়গায় ঘুরতে পছন্দ করতেন। এটাই নাকি মূল উদ্দেশ্য ছিলো!

এ প্রসঙ্গে সাকিব বলেছেন, ‘আমি যখন বিকেএসপিতে ভর্তি হলাম, দেখতাম অনূর্ধ্ব-১৩ ক্রিকেটাররা শিলিগুড়ি খেলতে গেছে। আমি আসলে ওদের ছবি দেখতাম। ওরা বরফের মধ্যে খেলছে, সেই ছবি। এগুলো আমাকে খুব টানতো। আমিও চাইতাম। আমি নিজেকে বলেছিলাম, দেশের বাইরে যাওয়া আর সুন্দর জায়গা দেখার এটাই সুযোগ। আচ্ছা, তো আমরা কোথায় যাচ্ছি? কলকাতা? ওহ, হ্যাঁ আমার তো ইডেন গার্ডেন দেখার অনেক ইচ্ছা। তাহলে আমাকে দলে থাকতে হবে! আমি এভাবে অনুপ্রাণিত হতাম।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Scroll To Top